বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ১১:৩০ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ:
সর্বস্তরের সবাইকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন মাহাবুব পারভেজ সর্বস্তরের সবাইকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন আনোয়ার হোসেন আনু শামীম ওসমান ও ডাঃ বিরুর পক্ষ থেকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নাসির উদ্দিন কাঁচপুর ইউপি’র ১নং ওয়ার্ডবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ উজ্জল ধামগড় ইউনিয়নবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন শরীফ হোসেন আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-শাহাদাৎ হোসেন আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-মোঃ শফিউল্লাহ মদনপুর ইউপি’র ২নং ওয়ার্ডবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন অহিদ ভূঁইয়া আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-সামছুল আলম (নয়ন) সনমান্দী ইউনিয়নবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নজরুল ইসলাম

আদালতের নির্দেশনা মেনেই স্থাপনা নির্মাণ করা হয়েছে দাবী বন্দরের মালিবাগের শাহীন মিয়ার

স্টাফ রিপোর্টারঃ
‘আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বন্দরের মালিবাগে স্থাপনা নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে’ এমন শিরোনামে ১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালের প্রকাশিত নিউজের বিষয়ে ভিন্নমত পোষণ করেছেন ভূক্তভোগী শাহীন মিয়া।

সাংবাদিকদের কাছে ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি জানান, ‘বন্দরের মুছাপুর ইউনিয়নের মালিবাগ এলাকায় সুদীর্ঘ ৫০ বছর যাবৎ ক্রয়কৃত সম্পত্তিতে স্থাপনা নির্মাণ করে আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে বাস করে আসছি। কিছুদিন পূর্বে আমরা আমাদের স্থাপনার ২য় তলার ছাদ ঢালাই করার প্রস্তুতি নিলে আমাদের বাড়ির দক্ষিণ প্রান্তের বাসিন্দা ছালেহ আহম্মেদ কোন একটি কুচক্রি মহলের কথায় প্ররোচিত হয়ে আমাদের সম্পত্তিতে তাদের সম্পত্তি রয়েছে এমন আজব চিন্তা করে ছাদ ঢালাই কার্যক্রমে বাধা দেয়ার উদ্দেশ্যে নারায়ণগঞ্জ আদালতে একটি পিটিশন কেস দায়ের করলে গত ১০ ফেব্রুয়ারি বিজ্ঞ আদালতে উল্লেখিত নালিশা সম্পত্তিতে ১৪৫ ধারায় শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখার এবং উল্লেখিত সম্পত্তি পরিদর্শণপূর্বক তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে বন্দর থানাকে আদেশ দেয়।

সে মোতাবেক বন্দর থানা পুলিশ সরেজমিনে তদন্ত করে সার্বিক বিষয়ে প্রতিবেদন জমা দিলে আদালত সার্বিক বিষয় পর্যালোচনা করে ২৩ ফেব্রুয়ারি তাদের নারাজির আবেদন না-মঞ্জুর করে এবং ২৮ ফেব্রুয়ারি দেওয়ানী কার্যবিধি আইনের ৩৯ আদেশ ১/২ রুলের বিধান মতে বিবাদী ছালেহ আহম্মেদ গংরা যাতে বাদী হাজী মোঃ জহিরুল ইসলাম গংদের নির্মাণ কাজে কোনরূপ বাধা প্রদান করতে না পারে আদালত সে আদেশনামা জারি করে।

সে মোতাবেক ১ মার্চ সোমবার সকালে আমরা ছাদ ঢালাইয়ের কার্যক্রম হাতে নেই। কিন্তু ছালেহ আহম্মেদরা ছাদ ঢালাই কার্যক্রমকে বাধাগ্রস্থ করতে নানান চেষ্টা চালায় এমনকি বিভিন্ন সাংবাদিক ভাইদের সাথে যোগাযোগ করেও তাদেরকে এনে বিষয়টি দেখায়। নির্মাণ কাজ পরিচালনার জন্য আদালতের আদেশের কপি সাংবাদিকরাও দেখেছেন। তথাপি আমাদেরকে ভূমিদস্যু আখ্যা দিয়ে এবং আমরা আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে রাতের আধারে স্থাপনা নির্মাণ করেছি এমন বিষয় উল্লেখ করে ১টি অনলাইন পোর্টালে নিউজ প্রকাশ করা বিষয়টি যথেষ্ট বেমানান, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ও গভীর ষড়যন্ত্র বলে আমরা মনে করি।

সমাজে আমাদেরকে হেয় করতে এবং আমাদের সুনাম নষ্ট করতে এধরণের অপপ্রচার চালানো হচ্ছে এবং বানোয়াট ও মিথ্যা তথ্য দিয়ে সাংবাদিকদেরকে বিভ্রান্ত করা হচ্ছে। তারা ব্যক্তিগত স্বার্থ উদ্ধারের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে। এধরণের মিথ্যা ও ভিত্তিহীন সংবাদের প্রতি তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং জাতির বিবেক সাংবাদিকদের অনুরোধ জানাবো আপনারা সরেজমিনে আরও তথ্য নিয়ে সঠিক সংবাদ প্রকাশ করলে সকলে উপকৃত হবে। আপনাদের সহায়তা সর্বদা আমাদের কাম্য’।

নিউজটি শেয়ার করুন:

আপনার মতামত কমেন্টস করুন


© All rights reserved © 2019 Newsnarayanganj71
Design & Developed BY N Host BD