বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ১০:০৩ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ:
সর্বস্তরের সবাইকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন মাহাবুব পারভেজ সর্বস্তরের সবাইকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন আনোয়ার হোসেন আনু শামীম ওসমান ও ডাঃ বিরুর পক্ষ থেকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নাসির উদ্দিন কাঁচপুর ইউপি’র ১নং ওয়ার্ডবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ উজ্জল ধামগড় ইউনিয়নবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন শরীফ হোসেন আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-শাহাদাৎ হোসেন আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-মোঃ শফিউল্লাহ মদনপুর ইউপি’র ২নং ওয়ার্ডবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন অহিদ ভূঁইয়া আসুন মাহে রমজানের পবিত্রতা রক্ষা করি ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি-সামছুল আলম (নয়ন) সনমান্দী ইউনিয়নবাসীকে মাহে রমজানের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন নজরুল ইসলাম

সোনারগাঁয়ে ভাংচুর করা আ’লীগ কার্যালয় ও ক্ষতিগ্রস্থদের বাড়ি পরিদর্শণে যাননি ইউএনও

নিউজ নারায়ণগঞ্জ ৭১ ডট কমঃ
সোনারগাঁয়ের রয়েল রিসোর্টে নারী সহ হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হকের অবস্থানের বিষয় নিয়ে শনিবার বিকেল থেকে রাত পর্যন্ত সৃষ্ট তান্ডব এবং সে তান্ডবে হেফাজত ইসলামের কর্মী ও সমর্থকদের সাথে কিছু ইন্ধনদাতাদের মদদে সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রধান কার্যালয়, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নুর ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, বাসা ও ব্যবহৃত গাড়ি এবং জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি সোহাগ রনির বাসায় ব্যাপকভাবে ভাংচুর চালানো হলেও ঘটনাস্থল পরিদর্শণে যাননি সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আতিকুল ইসলাম। প্রজাতন্ত্রের একজন প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও ইউএনও হওয়া সত্বেও তার উপজেলায় সৃষ্ট এমন ঘটনার পর তার পরিদর্শণে না যাওয়া নিয়ে অনেকেই গণমাধ্যমের কাছে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

ক্ষোভ প্রকাশকারীরা জানান, ‘সরকারের একজন কর্মকর্তা হয়েও এতো বড় ঘটনার পর তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেন নি। ক্ষতিগ্রস্থদের সমবেদনা জানান নি। তাছাড়া জড়িতদের বিরুদ্ধে কি ব্যবস্থা নেয়া যেতে পারে এবং তিনি কি পদক্ষেপ নিচ্ছেন সে বিষয়টি স্পষ্ট করেন নি। তাছাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রধান কার্যালয়েও মারাত্মকভাবে ভাংচুর করা হয়েছে সেখানেও তিনি পরিদর্শণে যাননি। বিষয়টি নিয়ে আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতা-কর্মীরাও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

এ বিষয়ে সোমবার বিকেলে ইউএনও আতিকুল ইসলাম গণমাধ্যমকে জানান, ‘রয়েল রিসোর্টে আমিও প্রায় ২ ঘন্টা অবরুদ্ধ ছিলাম। আওয়ামী লীগের কেউ এ বিষয়ে কোন খোঁজ খবর নেয়নি এবং কোন চেয়ারম্যান বা জনপ্রতিনিধি কেউ একটিবারের জন্য আসেনি। আমি চাইবো আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা প্রশাসনকে সহায়তা করবে ও আমাদের পাশে থাকবে। ক্ষতিগ্রস্থদের সাথে সকাল বিকেল আমার কথা হচ্ছে’।

নিউজটি শেয়ার করুন:

আপনার মতামত কমেন্টস করুন


© All rights reserved © 2019 Newsnarayanganj71
Design & Developed BY N Host BD